আজ

  • বৃহস্পতিবার
  • ৩রা ডিসেম্বর, ২০২০ খ্রিস্টাব্দ
  • ১৮ই অগ্রহায়ণ, ১৪২৭ বঙ্গাব্দ

র‌্যাবের জালে লটারি-বোনাস দেয়ার নামে বিকাশ প্রতারক চক্র!

আপডেট : অক্টোবর, ৮, ২০১৮, ৩:৪০ পূর্বাহ্ণ


স্টাফ রিপোর্টার>>>>ওমর আলম
মাদারীপুর র‌্যাব-৮এর সদস্যরা রোববার দুপুরে ফরিদপুরের ভাঙ্গায় পৃথক অভিযান চালিয়ে বিকাশ প্রতারক চক্রের তিন সদস্যকে আটক করেছেন। এসময় প্রতারণার কাজে ব্যবহৃত বিপুল পরিমান মোবাইল ফোন, সিমকার্ড ও অন্যান্য সরঞ্জামাদি এবং মাদক জব্দ করা হয়।
রোববার বিকালে র‌্যাব-৮ এক প্রেস ব্রিফিংয়ে জানায়, গোপন সংবাদের ভিক্তিতে রোববার দুপুরে ফরিদপুরের ভাঙ্গা উপজেলার রায়নগর এলাকায় অভিযান চালিয়ে বিকাশ প্রতারক চক্রের দুই সদস্য ওই এলাকার ফজলুর রহমানের ছেলে মো. মোস্তাফিজুর রহমান (২৭) ও মতলেব মাতুব্বরের ছেলে মো. শফিকুলকে (২০) আটক করা হয়। পরে তাদের কাছ থেকে ৩৫০ পিস ইয়াবা ট্যাবলেট এবং প্রতারণার কাজে ব্যবহৃত একটি ট্যাবলেট ফোন, ৯টি মোবাইল ফোন ও বিভিন্ন অপারেটরের ১২০টি সীমকার্ড এবং ১০ হাজার ৭৫০ টাকা জব্দ করা হয়।
একইদিন ওই উপজেলার পাতরাইল এলাকায় অভিযান চালিয়ে উক্ত গ্রামের রিয়াজ হোসেন (২৬) নামে আরেক প্রতারককে আটক করা হয়। এসময় তার কাছ থেকে ৫৫ পিস ইয়াবা ট্যাবলেট, দুই বোতল ফেনসিডিল ও প্রতারনার কাজে ব্যবহৃত ১৬টি মোবাইল ফোন এবং বিভিন্ন অপারেটরের ২১১টি সীমকার্ডসহ ২ হাজার ২০০ টাকা জব্দ করা হয়।
প্রেস ব্রিফিংয়ে জানানো হয়, এসব প্রতারকগণ মোবাইল ফোনে বিভিন্ন অ্যাকাউন্ট বন্ধ, লটারি ও বোনাসের প্রলোভন দেখিয়ে বিকাশ প্রতারণার মাধ্যমে দীর্ঘদিন যাবত বিপুল অংকের অর্থ আত্মসাৎ করে আসছিল। জিজ্ঞাসাবাদে প্রতারক চক্রের অন্যান্য সদস্যদের নাম ও কর্মতৎপরতার বিষয়ে বিস্তারিত জানতে পারে।
র‌্যাব জানায়, প্রতারণার উদ্দেশ্যে তারা লটারি, বোনাস প্রভৃতি প্রাপ্তির প্রলোভন দেখাতো বলে স্বীকার করে। ভবিষ্যতে উক্ত চক্রের পলাতক সদস্যদের গ্রেফতারসহ এ ধরনের অন্যান্য প্রতারক চক্রের বিরুদ্ধে র‌্যাবের অভিযান অব্যহত থাকবে।